Date & Time -  

ধর্ম এর সব খবর »

রাসুল (সা.) যেভাবে কথা বলতেন

মুহাম্মাদ সাইফুল ইসলাম   : কথাবার্তা দিয়ে একজন মানুষের ভালো–মন্দ যাচাই করা যায়। এরই মধ্যে ফুটে ওঠে তার ব্যক্তিত্ব ও স্বভাব। এই কথা মানুষকে যেমন জান্নাতে পৌঁছাতে সাহায্য করে, অনুরূপ জাহান্নামের পথেও নিয়ে যায়। একজন মুমিনের কথাবার্তা কেমন হবে, কেমন হবে তার সম্বোধন—তার উত্তম দৃষ্টান্ত রয়েছে রাসুল (সা.)-এর জীবনে। নিম্নে মহানবী… বিস্তারিত »

যেভাবে কেটেছে বিশ্বনবীর যৌবনকাল

ড. মুহাম্মদ আবদুল হাননান ঃ- ৫৯১ খ্রিস্টাব্দ। বিশ্বনবীর বয়স তখন ২০। কিশোর থেকে যৌবনে পদার্পণ করছেন মুহাম্মদ। চাচা আবু তালিবের পরামর্শে মক্কার ধনবতী নারী খাদিজা (রা.)-এর ব্যবসায় নিযুক্ত হলেন। ব্যবসায় নিযুক্ত হয়ে তিনি খাদিজার প্রতিনিধি হয়ে সিরিয়া গমন করেন। ‘ইসলামী বিশ্বকোষ’ গ্রন্থে উল্লেখ রয়েছে, খাদিজা (রা.)-এর প্রতিনিধি হিসেবে ব্যবসা উপলক্ষে তিনি… বিস্তারিত »

কোরআনের বাণী

সুরা : মায়িদা, দ্বিতীয় পর্ব……।। আল্লাহ মুমিনদের রক্ষাকারী ইরশাদ হয়েছে, ‘হে মুমিনগণ! তোমাদের প্রতি আল্লাহর অনুগ্রহ স্মরণ করো। যখন একটি সম্প্রদায় তোমাদের বিরুদ্ধে হাত ওঠাতে চেয়েছিল, আল্লাহ তাদের হাত তোমাদের থেকে নিবৃত্ত করেছিলেন। …’ (সুরা : মায়িদা, আয়াত : ১১) কোরআন আলোর পথের দিশারি ইরশাদ হয়েছে, ‘যারা আল্লাহর সন্তুষ্টি লাভ… বিস্তারিত »

মুহাম্মদ (সা.) কেন আরবে এসেছেন

তাজুল ইসলাম : সব নবীর শিক্ষা ও জ্ঞান নিয়ে মহানবী (সা.) পৃথিবীতে আগমন করেছেন। তাঁকে বিশ্ব মানবতার উদ্দেশে পাঠানো হয়েছে। তিনি যেমন আরবের নবী, তেমনি আমেরিকার নবী, তেমনি আফ্রিকার নবী, তেমনি বাংলাদেশের নবী, তেমনি ভারতের নবী, তেমনি চীনের নবী। ইরশাদ হয়েছে, ‘পরম কল্যাণময় তিনি, যিনি তাঁর বান্দার ওপর ফায়সালাকারী গ্রন্থ অবতীর্ণ… বিস্তারিত »

বিশ্বনবীর অর্থনৈতিক কর্মসূচি

রায়হান রাশেদ :- মুহাম্মদ (সা.) নবুয়তপ্রাপ্তির পর প্রথমে নিজ মাতৃভূমি মক্কার মানুষদের এক আল্লাহর পথে আহ্বান করেন। মক্কাবাসী তাঁর আহ্বান প্রত্যাখ্যান করে তাঁর বিরুদ্ধে সদলবলে নির্মম অত্যাচার শুরু করে। অত্যাচারের দাবানলে জ্বলে-পুড়েও তিনি দাওয়াতের কাজ অব্যাহত রাখেন। পরে আল্লাহর আদেশে তখনকার ইয়াসরিব বর্তমান মদিনা শহরে হিজরত করেন। মদিনায় গিয়ে অর্থনীতির ওপর… বিস্তারিত »

ব্যক্তিগত গোপনীয়তা রক্ষায় ইসলামের ৪ বিধি-নিষেধ

মাওলানা সাখাওয়াত উল্লাহ ঃ-  মানুষ আশরাফুল মাখলুকাত। তার সম্মান ও মর্যাদাও সবার চেয়ে বেশি। এই মর্যাদা সমুন্নত রাখতে ইসলাম ব্যক্তিগত গোপনীয়তা লঙ্ঘনে চারটি বিধি-নিষেধ আরোপ করেছে। ১. ছোটরা বড়দের রুমে প্রবেশের আগে তিন সময়ে অনুমতি চাইবে : ইরশাদ হয়েছে, ‘হে মুমিনরা! তোমাদের দাস-দাসীরা এবং তোমাদের মধ্যে যারা প্রাপ্তবয়স্ক হয়নি তারা যেন… বিস্তারিত »

হাদিসের শিক্ষা

মর্যাদাশীলরা ইমামতির অধিক যোগ্য..…….। আবু মুসা (রা.) বলেন, নবী (সা.) অসুস্থ হয়ে পড়েন, ক্রমেই তাঁর অসুস্থতা তীব্রতর হলে তিনি বলেন, আবু বকরকে লোকদের নিয়ে নামাজ আদায় করতে বলো। আয়েশা (রা.) বলেন, তিনি তো কোমল হৃদয়ের লোক, যখন আপনার স্থানে দাঁড়াবেন, তখন তিনি লোকদের নিয়ে নামাজ আদায় করতে পারবেন না। নবী… বিস্তারিত »

নবীজির ৫ বৈশিষ্ট্য

মো. আবদুল মজিদ মোল্লা :- জাবের ইবনে আবদুল্লাহ (রা.) বলেন, রাসুলুল্লাহ (সা.) বলেছেন, ‘আমাকে পাঁচটি বিষয় দান করা হয়েছে, যা আমার আগে কোনো নবীকে দান করা হয়নি। তা হলো—এক. আমাকে এমন প্রখর ব্যক্তিত্ব (বা প্রভাব) দিয়ে সাহায্য করা হয়েছে এক মাস দূরত্বেও যা প্রতিফলিত হয়, দুই. আমার জন্য জমিনকে পবিত্র… বিস্তারিত »

অমুসলিম পণ্ডিতদের দৃষ্টিতে মহানবী (সা.)

মুফতি সাইফুল ইসলাম ঃ- গভীর আঁধার কেটে ভেসে ওঠে আলোর গোলক/সমস্ত পৃথিবী যেন গায়ে মাখে জ্যোতির পরাগ, তাঁর পদপ্রান্তে লেগে নড়ে ওঠে কালের দোলক/বিশ্বাসে নরম হয় আমাদের বিশাল ভূভাগ। মহানবী (সা.)-কে নিয়ে নিজ অনুভব এভাবেই প্রকাশ করেছেন কবি আল মাহমুদ।  পৃথিবীর ইতিহাসে যুগে যুগে পথহারা মানুষকে সঠিক পথের নির্দেশনার জন্য… বিস্তারিত »

যেসব পাপে আগের জাতিগুলো ধ্বংস হয়েছিল

আতাউর রহমান খসরু  : পবিত্র কোরআনে আগের একাধিক জাতির ইতিহাস বর্ণনা করা হয়েছে। নিছক ঘটনার বর্ণনা এর উদ্দেশ্য নয়; বরং মুসলিম গবেষকরা বলেন, জ্ঞানী ব্যক্তিদের উচিত পূর্ববর্তী জাতিগুলোর অবস্থা, তাদের ব্যাপারে আল্লাহর বিচার ও বিধান, শাস্তি ও পুরস্কার ইত্যাদি সম্পর্কে জানা। যেন তার মাধ্যমে নিজেকে এবং স্বজাতিকে সতর্ক করতে পারে। পবিত্র… বিস্তারিত »

নবীজির ব্যতিক্রমী ১০ বৈশিষ্ট্য

মুফতি মুহাম্মদ রফিকুল ইসলামঃ-  আমাদের প্রিয় নবী (সা.) সব নবীর সেরা। তাঁর উম্মত সর্বোত্তম উম্মত। রাসুলুল্লাহ (সা.) বলেছেন, ‘আল্লাহ তাআলা সব নবীর ওপর আমাকে মর্যাদা দিয়েছেন এবং সব উম্মতের ওপর আমার উম্মতকে মর্যাদা দিয়েছেন।’ (তিরমিজি) তিনি আরো বলেছেন, ‘আমি আদম সন্তানের নেতা, এতে আমার কোনো অহংকার নেই।’ (মুসলিম, হাদিস :… বিস্তারিত »

আজরাইল (আ.) কি সবার জান কবজ করেন

                মুফতি তাজুল ইসলাম:-  অনেকের ধারণা, সব মানুষের রুহ কবজ করেন আজরাইল (আ.)। কিন্তু এই ধারণা সঠিক নয়। রুহ কবজ করার প্রধান দায়িত্বপ্রাপ্ত ফেরেশতা হলেন মালাকুল মাউত। কিন্তু তাঁর সহযোগী বহু ফেরেশতা আছেন। তাঁরা মালাকুল মাউতের নির্দেশে এ দায়িত্ব পালন করে থাকেন। মহান… বিস্তারিত »

নবীজির দুই ফুল হাসান ও হুসাইন (রা.)

                  মুফতি মুহাম্মদ মর্তুজা:-  প্রিয় নবীর প্রিয় দৌহিত্র, নয়নমণি, জান্নাতের ফুল হুসাইন (রা.)। তাঁর অন্যতম বৈশিষ্ট্য হলো তিনি শারীরিক গঠনে অনেকটা রাসুল (সা.)-এর মতো ছিলেন। এ ব্যাপারে আনাস ইবনে মালেক (রা.) থেকে একটি বর্ণনা রয়েছে। তিনি বলেন, লোকদের মাঝে দৈহিক কাঠামোয় রাসুলুল্লাহ… বিস্তারিত »

মায়ের সেবায় সাহাবির সৌভাগ্য

                  মুফতি ইবরাহিম সুলতানঃ-  নবীজির প্রিয় হারেসা বিন নোমান (রা.) ছিলেন একজন বিশিষ্ট আনসারি সাহাবি। মদিনার প্রসিদ্ধ আনসার গোত্র ‘বনু নাজ্জারে’ তাঁর জন্ম। রাসুলুল্লাহ (সা.)-এর সঙ্গে বদর, ওহুদ, খন্দকসহ সব যুদ্ধেই তিনি সমানভাবে অংশগ্রহণ করেছেন। নবীজির বিশেষ সাহচর্য ছাড়াও অনেক গুণ ও… বিস্তারিত »

আল্লাহর ওপর ভরসা করার পদ্ধতি

                    মুফতি সাইফুল ইসলাম :-  মুমিন জীবনের সর্বত্র সর্বাবস্থায় মহান আল্লাহর ওপর তাওয়াক্কুল বা আস্থা-ভরসা রাখা একান্ত অপরিহার্য। কারণ আল্লাহর ওপর ভরসা তাওহিদের পর সবচেয়ে বড় অনুষঙ্গ। এটি তাওহিদের প্রাণ ও ভিত। কোনো কাজে প্রয়োজনীয় মাধ্যম গ্রহণ করার পর এর পরিণাম আল্লাহর… বিস্তারিত »

যেভাবে হিজরি সনের উৎপত্তি

                মুফতি তাজুল ইসলাম: হিজরত ইসলামের ইতিহাসে এক যুগান্তকারী ঘটনা। বিশ্বের ইতিহাসেও সবচেয়ে তাৎপর্যবহ, সুদূরপ্রসারী ঘটনা এটি। এটি দ্বিন ও মানবতার বৃহত্তম স্বার্থে ত্যাগ, বিসর্জনের এক সাহসী পদক্ষেপ। মক্কার কাফিরদের পাশবিক নির্যাতন-নিপীড়ন, অব্যাহত অমানবিক আচরণ, সামাজিক ও অর্থনৈতিক অবরোধ নীরবে সহ্য করার পর… বিস্তারিত »

কোরআনে কোরবানি প্রসঙ্গ

মো. আবদুল মজিদ মোল্লাঃ-  কোরবানি’ অর্থ—নৈকট্য, সান্নিধ্য, উৎসর্গ। ঈদুল আজহার দিনগুলোতে আল্লাহর সন্তুষ্টি লাভের উদ্দেশ্যে নির্দিষ্ট পশু জবাই করাকে ‘কোরবানি’ বলা হয়। (মাজমাউল আনহুর : ২/৫১৬) কোরবানির বিধান আদম (আ.)-এর যুগ থেকেই চলে এসেছে। তবে বর্তমানে প্রচলিত কোরবানির গোড়াপত্তন করেন ইবরাহিম (আ.)। আল্লাহ বলেন, ‘আমি তার (ইসমাঈলের) পরিবর্তে জবাই করার… বিস্তারিত »

কোন পাপে কী শাস্তি

মুফতি মুহাম্মদ রফিকুল ইসলাম ঃ- পাপীকে অবশ্যই পাপের শাস্তি ভোগ করতে হবে—এটা ন্যায়বিচারের দাবি। এ শাস্তি কারো ইহকালে, আবার কারো হবে পরকালে। পার্থিব জগতে কোন পাপের কী শাস্তি হয়, এ বিষয়ে নিম্নে আলোচনা করা হলো— আত্মসাৎ করা : আত্মসাৎ করা মারাত্মক গুনাহ ও জঘন্য অপরাধ। মালিক ক্ষমা না করলে এ গুনাহ… বিস্তারিত »

হাদিসের শিক্ষা

প্রতিশোধের লড়াই গ্রহণযোগ্য নয় আবু মুসা (রা.) বলেন, এক ব্যক্তি নবী (সা.)-এর কাছে এসে বলল, ‘হে আল্লাহর রাসুল! আল্লাহর পথে যুদ্ধ কোনটি, কেননা আমাদের কেউ লড়াই করে রাগের বশবর্তী হয়ে, আবার কেউ লড়াই করে প্রতিশোধ নেওয়ার জন্য। তিনি তার দিকে মাথা তুলে তাকালেন। বর্ণনাকারী বলেন, তাঁর মাথা তোলার কারণ ছিল… বিস্তারিত »

হাশরের ময়দানে জীবজন্তুরও বিচার হবে

মাওলানা সাখাওয়াত উল্লাহ : ইসলাম ধর্মের অন্যতম বিশ্বাস হলো, পরকালের জবাবদিহি ও হিসাব-নিকাশ। পবিত্র কোরআনের বহু আয়াতে এ বিষয়ে বর্ণনা করা হয়েছে। এক আয়াতে আল্লাহ বলেন, ‘মানুষের হিসাব-নিকাশ অতি নিকটে। অথচ তারা উদাসীনতায় মুখ ফিরিয়ে আছে।’ (সুরা : আম্বিয়া, আয়াত : ১) অবিশ্বাসীরা কিয়ামত ও পুনরুত্থান বিষয়ে বিভিন্ন প্রশ্ন উত্থাপন করে… বিস্তারিত »